ফতুল্লায় স্কুল শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে মামাতো ভাই গ্রেফতার

ফতুল্লায় স্কুল শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে মামাতো ভাই গ্রেফতার

ফতুল্লা প্রতিনিধি :

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে স্কুল ছাত্রী কে ধর্ষণের অভিযোগে সৌরভ রাজবংশী (১৯) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (৪ জুলাই) রাতে তাকে কাশিপুর নিজ বাড়ী থেকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত সৌরভ রাজবংশী ফতুল্লা মডেল থানার কাশিপুর মধ্যপাড়া জেলেপাড়ার স্বপন রাজবংশীর ছেলে। 

এই ঘটনায় ভুক্তভোগী স্কুল ছাত্রী বাদী হয়ে গ্রেফতারকৃত সৌরভ রাজবংশী কে অভিযুক্ত করে ফতুলা মডেল থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, অভিযুক্ত যুবক সৌরভ রাজবংশী সম্পর্কে তার মামাতো ভাই। আত্নীয়তার সুবাদে তাদের উভয়ের বাড়ীতে প্রায় সময় আসা যাওয়া হতো। এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। এবং অভিযুক্ত সৌরভ রাজবংশী তাকে বিয়ের প্রলোভন দেখায়। গত বছরের অক্টোবর মাসের ১৫ তারিখে অনুষ্ঠিতব্য কালী পূজায় আত্নীয় হিসেবে বাদীকে সৌরব রাজবংশী তাদের বাসায় নিমন্ত্রণ করে। সেদিন ঐ বাসাতেই রাত্রী যাপন করে। অভিযুক্তের বোনের সাথে রাতে ঘুমিয়ে পরে। রাত দুইটার দিকে অভিযুক্ত সৌরভ তাকে ঘুম থেকে ডেকে তুলে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে প্রথম বারের মতো শারিরীক সম্পর্ক করে। এরপর থেকে সময় সুযোগ হলে প্রায় সময় তাদের মধ্যে শারিরীক সম্পর্ক হতো। বিয়ের কথা বললে সে এড়িয়ে চলতে শুরু করে। এরই মধ্যে সে গর্ভবতী হয়ে পরে। এ নিয়ে পরিবারের লোকজনের মধ্যে বিষয়টি জানাজানি হলে তাদের কে বিষয়টি নিয়ে বাড়াবাড়ি না করার জন্য হুমকি দেয়া হচ্ছিলো।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও ফতুল্লা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক কামরুজ্জামান জানান, অভিযুক্ত আসামী সৌরভ রাজবংশী কে মঙ্গলবার মধ্যরাতে কাশিপুরস্থ নিজ বাড়ী থেকে গ্রেফতার করা হয়। বুধবার দুপুরে তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে বলে তিনি জানান।