শীতলক্ষ্যা নদী থেকে দারোয়ানের লাশ উদ্ধার

শীতলক্ষ্যা নদী থেকে দারোয়ানের লাশ উদ্ধার

বন্দর প্রতিনিধিঃ

নারায়ণগঞ্জের শীতলক্ষ্যা নদী থেকে এস এ হাইড্রোলিক এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং ওয়ার্কস নামে এক ডকের দারোয়ানের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

শনিবার সকাল ৯টায় বন্দরের বক্তারকান্দি এলাকায় ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধারকারী দল এসে জাহাজ সরিয়ে লাশ উদ্ধার করে।

নিহত দারোয়ানের নাম খোকন মিয়া (৬৫)। তিনি বন্দরের স্বল্পের চক এলাকার বাসিন্দা।

গত শুক্রবার রাত ৮টায় দারোয়ান খোকন মিয়া ডকে কাজে এসে নিখোঁজ হয়। স্থানীয় লোকদের ধারনা, রাতে চোরের দল ডকে চুরি করতে আসলে দারোয়ান বাধা দিলে চোরেরা তাকে ধাক্কা দিয়ে নদীতে ফেলে দেয়। চোরদের ধাক্কায় জাহাজের সাথে আঘাত পেয়ে সে পানীতে ডুবে মারা যায়।

জাহাজে থাকা লোকেরা জানান, রাতে বিকট শব্দের আওয়াজ পেয়ে তারা ভয় পেয়ে যায়। কিছুক্ষন পর তারা দারোয়ানকে খোঁজাখুজি করে না পেয়ে দারোয়ানের পরিবারের কাছে খবর দেয়। সকালে নৌ-পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল এসে দারোয়ানের লাশ উদ্ধার করে।

এ ব্যপারে ডকের মালিক ইমন মিয়ার সাথে ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি ঘটনা আড়াল করে বলেন, তিনি কিছু জানেন না। ডকের ম্যানেজার শাহাদাৎ হোসেন বলেন সকালে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার নিয়ে যায় এবং ডকের একাউন্টেট ফয়েজ মিয়া ডক মালিককে সকালেই ঘটনা অবগত করেন।

এ ব্যপারে ডকের একাউন্টেট ফয়েজ মিয়ার মোবাইলে বার বার কল দিলে রহস্যজনক কারণে তিনি কল রিসিভ করেননি।

এ ব্যপারে নিহত দারোয়ানের পরিবারের পক্ষ থেকে জানানো হয়, সে নাকি নদীতে গোসল করতে নেমে তলিয়ে যায়। সকালে নৌ-পুলিশের সহায়তায় তার লাশ উদ্ধার করে। পরে পরিবারের কোন অভিযোগ না থাকায় বিনা ময়না তদন্তে পুলিশ পরিবারের কাছে লাশ হস্তান্তর করে। এ ব্যপারে থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।